বেরোবি’র ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত তথ্যাবলি, পরামর্শ

0


Published : ০১.১২.২০১৮ ০৯:৩২ পূর্বাহ্ণ BdST

এইচ. এম নুর আলমঃ রংপুরের বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে (বেরোবি) ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক ১ম বর্ষে ছয়টি অনুষদের ২১ টি বিভাগে ভর্তি পরীক্ষা আগামী ২ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়ে চলবে ৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত। তাই শিক্ষার্থীদের বেশ কিছু বিষয় জানা প্রয়োজন।


যেভাবে রংপুরে আসবেন:

ঢাকা থেকে শ্যামলী, হানিফ, নবিল ডিপজলসহ অনেক পরিবহন রয়েছে।ট্রেনে আসতে চাইলে রংপুর এক্সপ্রেস, লালমনি এক্সপ্রেসে চড়ে আসতে পারেন।ভাড়া লাগবে ৫০০ বা তার একটু বেশি।লালমনি এক্সপ্রেসে আসতে চাইলে কাউনিয়া নামতে হবে। সেখান থেকে বাসে বা ট্রেনে বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশে পার্ক মোড়ে নামতে হবে।রংপুর এক্সপ্রেসে আসতে চাইলে রংপুর স্টেশনে নেমে ১০ টাকা দিয়ে পার্ক মোড়ে আসতে হবে। ঢাকা বা অন্য জায়গা থেকে বাসে আসতে চাইলে মর্ডান মোড়ে নেমে বিশ্ববিদ্যালয়ে আসা যাবে। বা রিজার্ভ নিয়েও আসতে পারবে শিক্ষার্থীরা।

থাকবেন যেখানে:

দূরের শিক্ষার্থীরা রংপুরে থাকার জন্য অনেক আবাসিক হোটেল পাবেন। অথবা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়ন করে এমন শিক্ষার্থীর সাথে যোগাযোগ করতে পারেন।পার্ক মোড়ে মসজিদেও থাকতে পারেন পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীরা।

অসুদোপায় অবলম্বন করবেন না:

ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরা পরীক্ষার রাতে বা তার আগে প্রশ্নপত্র পাবার বৃথা চেষ্টা করেন।এটা ঠিক নয়।অথবা পরীক্ষার হলে বিশেষ ডিভাইসের মাধ্যমে দুর্নীতি করার অপপ্রয়াস চালান।এটা করবেন না।সৎভাবে পরীক্ষা দিন।কোনো প্রতারকের খপ্পরে পড়ে টাকার বিনিময়ে প্রলোভন পেয়ে প্রতারিত হবেন না।কেউ খপ্পরে পড়লে পুলিশ বা বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিকদের জানান।

পরীক্ষার হলে যা আনতে হবে আর যা নিষেধ:

১।টেলিটকের http://brur.teletalk.com.bd/ এই ওয়েবসাইট থেকে দুই কপি রঙ্গীন প্রবেশপত্র ডাউনলোড করে নিতে হবে।

২।পরীক্ষার হলে ডাউনলোডকৃত দুই কপি প্রবেশপত্র নিয়ে প্রবেশ করতে হবে।

৩।পরীক্ষার হলে এইচএসসি/ সমমান পরীক্ষার মূল রেজিস্ট্রেশন কার্ড নিয়ে প্রবেশ করতে হবে          (বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রসপেক্টাস অনুযায়ী)।

৪।পরীক্ষার হলে মোবাইল ফোনসহ যে কোনো ধরণের ইলেকট্রনিক ডিভাইস যেমন-যে কোনো ধরণের ক্যালকুলেটর, হেডফোন, মেমোরিযুক্ত ঘড়ি ইত্যাদি নিয়ে প্রবেশ করা যাবে না।

৫।পরীক্ষা শুরুর আধ ঘন্টা আগে পরীক্ষার হলে প্রবেশ করতে হবে।

পরীক্ষার দিন সহযোগিতা:

পরীক্ষার দিন (চাইলে) ঘড়ি, মোবাইল এবং প্রয়োজনীয় নিজ নিজ জেলা সমিতির হেল্প ডেস্কে নিকট রাখতে পারবেন।বিশ্ববিদ্যালয় গেটের বাইরে সীট প্লান দেখতে পারবেন।নিজ নিজ জেলা সমিতির নিকট পরীক্ষা সংক্রান্ত সহযোগিতা চাইতে পারেন।

পরীক্ষার হলে প্রবেশের পূর্বে করণীয়:

১।যা নিষেধ করা হয়েছে সেগুলো নিয়ে নিবেন না।

২।ভর্তি পরীক্ষার প্রবেশপত্র(দুই কপি রঙ্গীন) এবং এইচএসসি/সমমান পরীক্ষার মূল রেজিস্ট্রেশন কার্ড গুছিয়ে রাখুন।

৩।প্রয়োজনীয় কলম(কালো বল পয়েন্ট) রাখুন।

৪।ব্যাগ, মোবাইল, ঘড়ি ইত্যাদি থাকলে আপনার সাথে(পরিচিত) কেউ না থাকলে নিজ জেলা ডেস্কে রেখে কূপণ নিন।

পরীক্ষার হলে যা খেয়াল রাখবেন:

১।অযথা সময় নষ্ট করবেন না।

২।ওএমআর শীটে সুন্দর করে দেখে দেখে প্রয়োজনীয় তথ্য পূরণ করুন।

৩।ভালো করে দেখে বৃত্ত ভরাট করুন।ঘষামাজা করবেন না।ভাঁজ করবেন না।

৪।বিশ্ববিদ্যালয় বা কোনো বিষয় সম্পর্কে কিছু লিখতে বললে খেয়াল করে লিখবেন।

৫।দায়িত্বপ্রাপ্ত হল পরিদর্শকের সাথে সৌজন্যমূলক আচরণ করুন।

৬।প্রবেশপত্রের দুটিতেই হল পরিদর্শক স্বাক্ষর দিয়ে আপনাকে একটি দিবে সেটি সংরক্ষণ করুন।

শেষ সময়ের প্রস্তুতি:

হাতে আছে আর দু/একদিন।তাই যেগুলো গুরুত্বপূর্ণ সেগুলোই পড়ুন। পুরনো পড়া রিভাইজ দিন।নতুন করে মাথায় কঠিন বিষয়ে চাপ নেওয়ার প্রয়োজন নেই।তাড়াহুড়ো করে যা পড়বেন সব ভুলে যাবেন।তাই রিলাক্স করে পড়ুন।ভীতি নয় সাহস এবং মনে আশা জোগান।

ইউনিটভিত্তির পরীক্ষার সময়সূচি:

আগামী ২ ডিসেম্বর চার শিফটে কলা অনুষদের (এ-ইউনিটের) ভর্তি পরীক্ষা, ৩ ডিসেম্বর চার শিফটে সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের (বি- ইউনিটের), ৪ ডিসেম্বর ১ম ও ২য় শিফটে বিজনেস স্টাডিজ অনুষদের (সি-ইউনিটের) এবং ৩য় ও ৪র্থ শিফটে জীব ও ভূ-বিজ্ঞান অনুষদের (এফ-ইউনিটের) এবং (শেষ দিন) ৫ ডিসেম্বর ১ম ও ২য় শিফটে বিজ্ঞান অনুষদের (ডি-ইউনিটের) এবং ৩য় ও ৪র্থ শিফটে প্রকৌশল ও প্রযুক্তি অনুষদের (ই-ইউনিটের) ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ১ম শিফট শুরু হবে সকাল ৯টা-১০টা, ২য় শিফট সকাল ১১টা-১২টা, ৩য় শিফট দুপুর দেড়টা-আড়াইটা এবং ৪র্থ শিফট বিকাল সাড়ে ৩ টা-সাড়ে ৪টা পর্যন্ত।

কোন ইউনিটে কতজন রেজিস্ট্রেশন করেছেন এবং লড়ছেন: এ ইউনিটভুক্ত কলা অনুষদে রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন হয়েছে ১৮ হাজার ২৭০।বি ইউনিটভুক্ত সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদে ১৯ হাজার ৮শত ১১ জন; সি ইউনিটভুক্ত বিজনেজ স্টাডিজ অনুষদে ৮হাজার ১২৩ জন; ডি ইউনিটভুক্ত বিজ্ঞান অনুষদে ৮ হাজার ৯০১; ই ইউনিটভুক্ত প্রকৌশল ও প্রযুক্তি অনুষদে ৬ হাজার ৯৬৬ এবং এফ ইউনিটভুক্ত জীব ও ভূ-বিজ্ঞান অনুষদে ৮ হাজার ৫৯৬জন।

ইউনিটভিত্তিক রেজিস্ট্রেশনে এ ইউনিটে প্রতি আসনে লড়বে ৯৩ জন, বি ইউনিটে ৫২ জন, সি ইউনিটে ৩৩ জন, ডি ইউনিটে ৩১ জন, ই ইউনিটে ৬৯ এবং এফ ইউনিটে ৭১ জন।

ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত তথ্য:

ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত তথ্যের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় সংবাদ কর্মীদের সহযোগিতা নিন। তাদের গ্রুপ, পেজে নক দিন।বিশ্ববিদ্যালয়ের ফেসবুক পেজ https://www.facebook.com/brur.admission.info এবং ওয়েবসাইট থেকে তথ্য নিতে পারেন http://www.brur.ac.bd/ । প্রতিটি ইউনিটের সীট প্লান (আসন বিন্যাস-http://brur.ac.bd/admission2018/seatplan.html ঐ ইউনিটের পরীক্ষার দুই দিন আগে উত্তোলন করা যাবে।

আপনার মন্তব্য :

Please enter your comment!
Please enter your name here